শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ১০:২১ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
আরাফার দিনের গুরুত্ব ও তাৎপর্য কারিগরি শিক্ষার প্রসারে কাজ করছে সরকার— শফিকুর রহমান চৌধুরী এমপি মুক্তিযোদ্ধা কোটা পুনর্বহালের দাবীতে তেঁতুলিয়ায় প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত নতুন সেনাপ্রধান ওয়াকার-উজ-জামানকে প্রবাসীদের অভিনন্দন ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে নবীগঞ্জে ব্যস্ত কামার শিল্পীরা অনলাইনে কোরবানির পশু কেনা-বেচা শুরু করেছে বিক্রয় শ্রীমঙ্গলে গ্যাস লাইনের উপর থেকে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ হঠাৎ অসুস্থ হয়ে ড. এ কে আব্দুল মোমেন সিএমএইচে ভর্তি নিউইয়র্কে সিরাজুল আলম খানের প্রথম প্রয়ান দিবস পালিত ঠাকুরগাঁওয়ে স্বাস্থ্যকর খাদ্য উৎপাদন বিষয়ক প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত

দেশে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করব: প্রধান বিচারপতি

আদালত প্রতিবেদক
  • খবর আপডেট সময় : শুক্রবার, ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২৩
  • ৮২ এই পর্যন্ত দেখেছেন

সংবিধান সংরক্ষণ করে দেশে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করতে সহকর্মী বিচারপতিদের নিয়ে একসঙ্গে কাজ করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেছেন নবনিযুক্ত প্রধান বিচারপতি ওবায়দুল হাসান। বৃহস্পতিবার (২৮ সেপ্টেম্বর) দুপুরে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে সাংবাদিকদের কাছে এ কথা বলেন তিনি।

প্রধান বিচারপতি বলেন, বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশের স্বাধীনতার জনক। তিনি আমাদের জাতির বিবেক। বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠায় বঙ্গবন্ধুর যে অনন্য অবদান, সে অবদান থেকে বাঙালি জাতি কখনও বিচ্যুত হবে না। বাংলাদেশকে সাংবিধানিক পথে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠায় এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে।

প্রধান বিচারপতি আরও বলেন, আমি এবং আমার সহকর্মীরা বহুবার বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে এসেছি। আজ আমি বাংলাদেশের প্রধান বিচারপতি হিসেবে এসেছি। তখনকার অনুভূতি আর এখনকার এই অনুভূতি একই, তবে দায়িত্ব অনেক।

পৃথিবীতে বাঙালি জাতি-রাষ্ট্র বলতে একটিই দেশ, আর সেটি হলো বাংলাদেশ। আর সেই বাংলাদেশের প্রতিষ্ঠাতা হচ্ছেন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান উল্লেখ করে প্রধান বিচারপতি বলেন, তিনি (বঙ্গবন্ধু) বাংলাদেশ দিয়ে গেছেন, আমাদের দেশ দিয়ে গেছেন—আর সেই দেশ পরিচালনার জন্য দিয়ে গেছেন একটি সংবিধান। আমি এবং আমার সহকর্মী বিচারপতিরা এই সংবিধান সংরক্ষণ করার শপথ নিয়েছি। প্রধান বিচারপতি হয়ে আবারও আমি (২৬ সেপ্টেম্বর) শপথ গ্রহণ করি। এই সংবিধান সংরক্ষণ করব, দেশে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করব।

এর আগে প্রধান বিচারপতি টুঙ্গিপাড়া বঙ্গবন্ধু সমাধি কমপ্লেক্সে পৌঁছে সমাধি সৌধের বেদিতে পুস্পস্তবক অর্পণ করে বঙ্গবন্ধুর প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পরে তিনি বেদীর পাশে কিছুক্ষণ দাঁড়িয়ে থেকে বন্ধুর প্রতি গভীর সম্মান প্রদর্শন করেন। শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে পবিত্র ফাতেহা পাঠ করে তিনি বঙ্গবন্ধু, ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্টের শহীদ ও মহান মুক্তিযুদ্ধে আত্মদানকারী ৩০ লাখ শহীদের আত্মার মাগফিরাত কামনায় বিশেষ মোনাজাতে অংশ নেন

এরপর প্রধান বিচারপতি বঙ্গবন্ধু সমাধিসৌধের প্রশাসনিক ভবনে যান। সেখানে সংরক্ষিত পরিদর্শন বইতে স্বাক্ষর করেন।

দুপুর পৌনে ৩টায় প্রধান বিচারপতি ওবায়দুল হাসান বঙ্গবন্ধুর সমাধি সৌধ কমপ্লেক্স মসজিদে গোপালগঞ্জ জেলা প্রশাসন ও ইসলামী ফাউন্ডেশন আয়োজিত পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবীর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দেন। সেখানে প্রধান বিচারপতি ওবায়দুল হাসান, জেলা প্রশাসক কাজী মাহবুবুল আলম বক্তব্য দেন।

এরপর ঈদে মিলাদুন্নবীর মিলাদ ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।

এ সময় আপিল বিভাগের বিচারপতি এম. এনায়েতুর রহীম, বোরহান উদ্দীন, মো. আশফাকুল ইসলাম, হাইকো্র্ট বিভাগের বিচারপতি নাঈমা রহমান, মামনুন রহমান, জিয়াউল করিম, মো. হাবিবুল গনি, ড. মোহাম্মদ বশির উল্লাহ, মো. আমিনুল ইসলাম, সুপ্রিম কোর্টের রেজিস্ট্রার জেনারেল গোলাম রব্বানী, আপিল বিভাগের রেজিস্ট্রার মো. সাইফুর রহমান, উভয় বিভাগের বিচারপতি, গোপালগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ মো. কামরুল হাসান, জেলা প্রশাসক কাজী মাহবুবুল আলম, পুলিশ সুপার আল-বেলী আফিফা, চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ শাহাদাত হোসেন ভুইয়া, আইনজীবীসহ আরও অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

নিউজ /এমএসএম

দয়া করে খবরটি শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

এই ক্যাটাগরিতে আরো যেসব খবর রয়েছে
All rights reserved © UKBDTV.COM
       
themesba-lates1749691102