বুধবার, ২৪ জুলাই ২০২৪, ০৬:২৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
ছাত্র আন্দোলনের নামে নাশকতাকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা—-ব্যারিস্টার মো. হারুন অর রশিদ দেশকে বিশ্ব থেকে বিচ্ছিন্ন করতেই বিএনপি-জামায়াতের কর্মীরা কেন্দ্রীয় ডাটা সেন্টার জ্বালিয়ে দিয়েছে—-তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী প্রেসিডেন্ট প্রার্থীতা থেকে সরে দাঁড়ালেন বাইডেন দেশব্যাপী নাশকতায় বিএনপি-জামায়াত জড়িত আরো তিন দিনের এইচএসসি পরীক্ষা স্থগিত ফিফা র‍্যাংকিংয়ে সেরা আর্জেন্টিনা, ব্রাজিল কোথায়? শিক্ষার্থীদের লাশ বানিয়ে ফায়দা লোটার অপচেষ্টায় বিএনপি-জামায়াত: কাদের পরিস্থিতি বুঝে মোবাইল ইন্টারনেট বন্ধ করা হয়েছে : পলক কোটা আন্দোলনকারীদের প্রস্তাব গ্রহণ করেছেন প্রধানমন্ত্রী: আইনমন্ত্রী শিক্ষার্থীদের সঙ্গে আলোচনার জন্য দুই মন্ত্রীকে দায়িত্ব দিলেন প্রধানমন্ত্রী

ড. মিজানুর রহমান

সুবিধাবাদীদের থেকে প্রধানমন্ত্রীকে রক্ষায় সচেতন নাগরিকদের এগিয়ে আসতে হবে

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • খবর আপডেট সময় : রবিবার, ৩০ জুন, ২০২৪
  • ৩২ এই পর্যন্ত দেখেছেন

জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. মিজানুর রহমান বলেছেন, ‘চাটার দলের’ হাত থেকে প্রধানমন্ত্রীকে রক্ষায় মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের সচেতন নাগরিকদের এগিয়ে আসতে হবে।

তিনি বলেন, আশপাশের সুবিধাবাদীরা যাতে তার ভালো কাজগুলো ধূলিসাৎ করতে না পারে, সেটা প্রধামন্ত্রীরও ভাববার সময় এসেছে।

শনিবার রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে বাংলাদেশ যুব ঐক্য পরিষদের দ্বিতীয় জাতীয় সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন।

ড. মিজানুর রহমান বলেন, রক্তার্জিত স্বাধীনতার পরেও সমঅধিকার ও সমমর্যাদা দিতে ব্যর্থ হওয়ায় বাংলাদেশের ধর্মীয়-জাতিগত সংখ্যালঘুরা বৈষম্যের শিকার হচ্ছে।  মুক্তিযুদ্ধে সংখ্যালঘুদের ত্যাগ ও অবদান কিছুতেই অস্বীকার করা যাবে না। তারা দেশপ্রেমের জন্য একাত্তরে পাকিস্তানি হানাদার দখলদার বাহিনী ও তাদের এদেশীয় এজেন্টদের টার্গেটে পরিণত হয়েছিল। আজও তাদের মুক্তি মেলেনি।

তিনি আরও বলেন, রাষ্ট্র ও রাজনীতিতে স্খলন ঘটে গেছে। তিনি সংখ্যালঘু সুরক্ষা আইন প্রণয়ন, জাতীয় সংখ্যালঘু কমিশন গঠন, বৈষম্য বিলোপ আইন প্রণয়নসহ নির্বাচনি ইশতেহারে প্রতিশ্রুত সংখ্যালঘু স্বার্থবান্ধব অঙ্গীকারসমূহ দ্রুত বাস্তবায়নের জন্য সরকারের প্রতি জোর দাবি জানান।

বীর মুক্তিযোদ্ধা মাহবুব জামান বলেন, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের বাংলাদেশ পুনঃপ্রতিষ্ঠার আন্দোলন জোরদারে মুক্তিযুদ্ধপ্রেমী সর্বস্তরের জনগণকে ঐক্যবদ্ধভাবে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।

সাউথ এশিয়া ফোরাম ফর রিলিজিয়াস ফ্রিডম অ্যান্ড বিলিফ’র ডাইরেক্টর স্যামুয়েল জয়কুমার বাংলাদেশসহ দক্ষিণ এশিয়ার দেশসমূহের জনগণের ধর্মীয় বিশ্বাস ও স্বাধীনতার ওপর জোর গুরুত্বারোপ করে এ লক্ষ্যে মানবিক অধিকারের সংগ্রামকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার ওপর জোর দেন।

বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর ড. নিমচন্দ্র ভৌমিক জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মাধ্যমে সম্মেলনের উদ্বোধন করেন।

এতে প্রধান বক্তা ছিলেন বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট রানা দাশগুপ্ত। সম্মেলনে বক্তৃতা করেন পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির অন্য দুজন সভাপতি সাবেক এমপি ঊষাতন তালুকদার ও নির্মল রোজারিও, অ্যাড. সুব্রত চৌধুরী, কাজল দেবনাথ, মিলন কান্তি দত্ত, জে এল ভৌমিক, রঞ্জন কর্মকার, বীর মুক্তিযোদ্ধা জয়ন্তী রায়, মনীন্দ্র কুমার নাথ, জয়ন্ত কুমার দেব, অ্যাড, তাপস কুমার পাল, নির্মল কুমার চ্যাটার্জি, অ্যাড, শ্যামল কুমার রায়, অ্যাড, কিশোর রঞ্জন মণ্ডল, রমেন মণ্ডল, উইলিয়াম প্রলয় সমাদ্দার বাপ্পী, ইঞ্জি. দিব্যেন্দু বিকাশ চৌধুরী বড়ুয়া ও মধুমিতা বড়ুয়া।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) স্বাধীনতাউত্তর প্রথম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব জামান ও সাউথ এশিয়া ফোরাম ফর রিলিজিয়াস ফ্রিডম অ্যান্ড বিলিফ-র ডাইরেক্টর স্যামুয়েল জয় কুমার প্রমুখ।

নিউজ /এমএসএম

দয়া করে খবরটি শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

এই ক্যাটাগরিতে আরো যেসব খবর রয়েছে
All rights reserved © UKBDTV.COM
       
themesba-lates1749691102